Deshprothikhon-adv

বিদেশী বিনিয়োগ বাড়ছে ১৮.৫১ শতাংশ, টার্গেট ১০ কোম্পানি

0

dse-cse lagoশেয়ারবার্তা ২৪ ডটকম, ঢাকা: চলতি বছর দেশের শেয়ারবাজারে বিদেশী বিনিয়োগকারীদের অংশগ্রহণ বেড়েছে। ২০১৬ সাল শেষে দেশের প্রধান স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) আগের বছরের তুলনায় বিদেশীদের লেনদেন ১৮ দশমিক ৫১ শতাংশ বেড়েছে। স্টক এক্সচেঞ্জটিতে চলতি বছর বিদেশী বিনিয়োগকারীদের মোট লেনদেনের পরিমাণ ৮ হাজার ৭৭৩ কোটি টাকা, যা ২০১৫ সালে ছিল ৭ হাজার ৪৬৫ কোটি টাকা।

ডিএসই জানিয়েছে, বিদেশীদের লেনদেন ২০১৬ সালে অতীতের সব রেকর্ড ছাড়িয়েছে। একই সঙ্গে তাদের সিকিউরিটিজ বিক্রির পরিবর্তে ক্রয়ের হারও বেড়েছে উল্লেখযোগ্য হারে। চলতি বছর বিদেশী বিনিয়োগকারীদের ৮ হাজার ৭৭৩ কোটি টাকার লেনদেনের মধ্যে ক্রয়কৃত সিকিউরিটিজের পরিমাণ ৫ হাজার ৫৭ কোটি ও বিক্রীত সিকিউরিটিজের পরিমাণ ৩ হাজার ৭১৬ কোটি টাকা।

অন্যদিকে ২০১৫ সালে বিদেশী বিনিয়োগকারীদের ৭ হাজার ৪৬৫ কোটি টাকার লেনদেনের মধ্যে ক্রয়কৃত সিকিউরিটিজের পরিমাণ ছিল ৩ হাজার ৮২৫ কোটি ও বিক্রীত সিকিউরিটিজের পরিমাণ ছিল ৩ হাজার ৪৩৯ কোটি টাকা।

এদিকে যেসব কোম্পানিকে ঘিরে বিদেশিরা তাদের বিনিয়োগের পরিমাণ বাড়িয়ে চলছে সেখানে ১০টি কোম্পানি চিহ্নিত হয়েছে যেখানে তাদের বিনিয়োগের পরিমাণ ১৩ হাজার ৬৪১ টাকা। অর্থাৎ মোট বিনিয়োগের বেশিরভাগই রয়েছে এই ১০ কোম্পানিকে ঘিরে।

ডিএসই থেকে প্রাপ্ত তথ্যে জানা যায়,  গত নভেম্বর শেষে শেয়ারের বাজার মূল্যে বিদেশিদের সর্বাধিক প্রায় ২ হাজার ৪১১ কোটি টাকার বিনিয়োগ ছিল স্কয়ার ফার্মায়। এরপরের অবস্থানে ছিল অলিম্পিক ইন্ডাস্ট্রিজে ২ হাজার ২২৬ কোটি টাকার, ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকোতে ২ হাজার ২০৫ কোটি টাকা। এছাড়া বাজারদরের হিসেবে বিদেশিদের বিনিয়োগ করা শেয়ারের মূল্যে ব্র্যাক ব্যাংকের ক্ষেত্রে ১ হাজার ৯২২ কোটি টাকা,

রেনেটাতে ১ হাজার ২৫৮ কোটি টাকা, বেক্সিমকো ফার্মাতে ১ হাজার ২৩৮ কোটি টাকা, গ্রামীণফোনে ৮৫৭ কোটি টাকা, বিএসআরএম লিমিটেডে ৭৭৬ কোটি টাকা, ডিবিএইচে ৪৩৯ কোটি টাকা, ইসলামী ব্যাংকে ৩০৯ কোটি টাকা দাঁড়িয়েছে। অর্থাৎ এই ১০ কোম্পানিকে বিদেশিদের বিনিয়োগের পরিমাণ ১৩ হাজার ৬৪১ টাকা।

এছাড়া শেয়ার ধারণের বিষয় বিবেচনায় গত নভেম্বরে সর্বাধিক প্রায় ৩ শতাংশ শেয়ার ধারণ বেড়েছে ডেফোডিল কম্পিউটার্সে। গত অক্টোবর শেষে এ কোম্পানিতে বিদেশিদের কোনো বিনিয়োগ ছিল না। অর্থাৎ নভেম্বরে তা ২ দশমিক ৯১ শতাংশে উন্নীত হয়েছে। এছাড়া জিএসপি ফাইন্যান্সে ১ দশমিক ৩৭ শতাংশ, বেক্সিমকো ফার্মায় ১ দশমিক ০৬ শতাংশ শেয়ার ধারণ বেড়েছে। উল্লেখযোগ্য শেয়ার ধারণ বেড়েছে আর্গন ডেনিম, সিটি জেনারেল ইন্স্যুরেন্স, ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক, বারাকা পাওয়ার, ইউনিয়ন ক্যাপিটাল, এপেক্স ফুডস, বে লিজিংসহ কিছু কোম্পানিতে।

তবে বিদেশিরা কোনো কোম্পানির মোট শেয়ারের মধ্যে (শতাংশের হারে) সর্বাধিক ৪১ দশমিক ৩৮ শতাংশ শেয়ার ধারণ করছে ব্র্যাক ব্যাংকের। এরপরের অবস্থানে আছে অলিম্পিক ইন্ডাস্ট্রিজের ৩৯ দশমিক ৫৫ শতাংশ, বেক্সিমকো ফার্মার প্রায় ৩৯ শতাংশ, ডিবিএইচের ৩৫ শতাংশ, নর্দার্ন জুটের ৩০ শতাংশ, বিএসআরএম লিমিটেডের ২৯ দশমিক ৩১ শতাংশ, রেনেটাতে পৌনে ২২ শতাংশ, স্কয়ার ফার্মার পৌনে ১৯ শতাংশ, ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকোর সাড়ে ১৪ শতাংশ, বেক্সিমকো লিমিটেডের প্রায় ১০ শতাংশ শেয়ার রয়েছে বিদেশিদের পোর্টফোলিওতে।

Comments are closed.