Deshprothikhon-adv

আরএফএলসহ ৪ কোম্পানির ডিভিডেন্ড ঘোষণা

0
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0Share on LinkedIn0Share on Yummly0Share on StumbleUpon0Share on Reddit0Flattr the authorEmail this to someonePrint this page

divedend lagoশেয়ারবার্তা ২৪ ডটকম, ঢাকা: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ৪ কোম্পানি সমাপ্ত অর্থবছরে বিনিয়োগকারীদের জন্য ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। অনুষ্ঠিত এসব কোম্পানির পরিচালনা পর্ষদ সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। সংশ্লিষ্ট সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।  কোম্পানিগুলো হলো: আরএফএল, তোসরিফা ইস্টাস্ট্রিজ, সিটি ব্যাংক, সিএমসি কামাল।

আরএফএল: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত প্রকৌশলী খাতের কোম্পানি আরএফএল লিমিটেডের পরিচালনা পর্ষদ ৩১ ডিসেম্বর ২০১৫ সমাপ্ত হিসাব বছরের ২৩ শতাংশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। এর পুরোটাই বোনাস। সমাপ্ত অর্থবছরে নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে এ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে।

কোম্পানি সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। আরএফএল ইন্ডাস্ট্রিজের পরিচালনা পর্ষদের সভায় ডিভিডেন্ডের এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সমাপ্ত বছরে কোম্পানির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৩.৫৯ টাকা এবং শেয়ার প্রতি প্রকৃত সম্পদমূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ২১.৩৯ টাকা। ডিভিডেন্ড অনুমোদনের জন্য বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) আগামী ২৩ জুন অনুষ্ঠিত হবে। এর সংক্রান্ত রেকর্ড ডেট হচ্ছে আগামী ১৯ মে ।

তোসরিফা ইস্টাস্ট্রিজ: তালিকাভুক্ত বস্ত্র খাতের কোম্পানি তোসরিফা ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের পরিচালনা পর্ষদ ৩১ ডিসেম্বর ২০১৫ সমাপ্ত হিসাব বছরের ১২ শতাংশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। এর পুরোটাই বোনাস। সমাপ্ত অর্থবছরে নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে এ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে।

কোম্পানি সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। তোসরিফা ইন্ডাস্ট্রিজের পরিচালনা পর্ষদের সভায় ডিভিডেন্ডের এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সমাপ্ত বছরে কোম্পানির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ২.৪৪ টাকা এবং শেয়ার প্রতি প্রকৃত সম্পদমূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ৩২.৩৬ টাকা।

ডিভিডেন্ড অনুমোদনের জন্য বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) আগামী ১০ আগষ্ট অনুষ্ঠিত হবে। এর সংক্রান্ত রেকর্ড ডেট হচ্ছে আগামী ৭ জুন । ২০১৪ সালে কোম্পাটি ১২ শতাংশ ডিভিডেন্ড দিয়েছিল। বস্ত্র খাতের কোম্পানিটি ২০১৫ সালে শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত হয়।

সিটি ব্যাংক: তালিকাভুক্ত ব্যাংক খাতের কোম্পানি সিটি ব্যাংক লিমিটেডের পরিচালনা পর্ষদ ৩১ ডিসেম্বর ২০১৫ সমাপ্ত হিসাব বছরের ২২ শতাংশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। এর পুরোটাই বোনাস। সমাপ্ত অর্থবছরে নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে এ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে।

ব্যাংক সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। ব্যাংকটির পরিচালনা পর্ষদের সভায় ডিভিডেন্ডের এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সমাপ্ত বছরে কোম্পানির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৪.০৯ টাকা এবং শেয়ার প্রতি প্রকৃত সম্পদমূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ২৯.১৩ টাকা।

ডিভিডেন্ড অনুমোদনের জন্য বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) আগামী ১৮ জুলাই অনুষ্ঠিত হবে। এর সংক্রান্ত রেকর্ড ডেট হচ্ছে আগামী ১২জুন। ২০১৪ সালে ব্যাংকটি ৫ শতাংশ স্টক ডিভিডেন্ড দিয়েছিল। ব্যাংক খাতের কোম্পানিটি ১৯৮৬ সালে শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত হয়।

সিএমসি কামাল: তালিকাভুক্ত বস্ত্র খাতের কোম্পানি সিএমসি কামাল টেক্সটাইল লিমিটেডের পরিচালনা পর্ষদ ৩১ ডিসেম্বর ২০১৫ সমাপ্ত হিসাব বছরের ১৩ শতাংশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। সমাপ্ত অর্থবছরে নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। ঘোষিত ডিভিডেন্ডের পরিমাণ ১৩ শতাংশ স্টক।

কোম্পানি সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। বৃহস্পতিবার বিকেলে অনুষ্ঠিত পরিচালনা পর্ষদের সভায় ডিভিডেন্ডের এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সমাপ্ত বছরে কোম্পানির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৪৫ টাকা এবং শেয়ার প্রতি প্রকৃত সম্পদমূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ১৮.৭১ টাকা।

ডিভিডেন্ড অনুমোদনের জন্য বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) আগামী ৬ জুন অনুষ্ঠিত হবে। এর সংক্রান্ত রেকর্ড ডেট হচ্ছে আগামী ১৯ মে। ২০১৪ সালে কোম্পানিটি সাড়ে ১২ শতাংশ স্টক ডিভিডেন্ড দিয়েছিল। ব্যাংক খাতের কোম্পানিটি ১৯৯৭ সালে শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত হয়।

Leave A Reply