Deshprothikhon-adv

বিসিএস প্রিলিমিনারিতে ভালো করার জন্য যে বই দরকার

0
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0Share on LinkedIn0Share on Yummly0Share on StumbleUpon0Share on Reddit0Flattr the authorEmail this to someonePrint this page

bcs-lagoশেয়ারবার্তা ২৪ ডটকম, ঢাকা: আজকের লেখাটি তাদের জন্যই যারা বিসিএস প্রিলিমিনারিতে ভালো করতে চান । এ যুদ্ধে জয়ী হতে হলে পড়তে হবে। পরিশ্রম এর ফল কখনো বৃথা যায়না। পড়ে ক্যাডার হয়েছে এরকম সংখ্যা ১০০%। আপনি একজন ও দেখাতে পারবেন না যিনি না পড়েই ক্যাডার হয়েছেন বা সরকারি ভাল কোন চাকরি পেয়েছেন। তাই চলুন আজ থেকে শুরু করা যাক প্রিলি প্রস্তুতি। প্রিলি প্রস্তুতির সার্বিক বইয়ের তালিকা থাকছে আজ আপনার জন্য।

বাংলা
সাহিত্য অংশের জন্য সৌমিত্র শেখরের “জিজ্ঞাসা “। ব্যাকরণের জন্য ৯ম-১০ম শ্রেণীর বাংলা ব্যাকরণ বা হায়াৎ মাহমুদের ব্যাকরণ বইটি (যেকোন একটি হলেই চলবে)। এগুলোর পাশাপাশি যদি সম্ভব হয় (না দেখলে ও সমস্যা নাই) ৯ম-১০ম শ্রেণীর বাংলা বইয়ের গদ্য ও কবিতার লেখক পরিচিত দেখতে পারেন। সাথে রাখবেন প্রফেসরস /এসিউরেন্স/ওরাকলের যেকোন একটি বই।

ইংরেজি
গ্রামারের জন্য আপনার কাছে যে বইটি সবচেয়ে সহজ মনে হয় সে বইটি পড়তে পারেন। তবে হাইস্কুলের এডভান্স (চৌধুরী এন্ড হোসাইন) বইটি থেকে গ্রামার অংশ দেখতে পারেন। অথবা এসিউরেন্স কিংবা কলেজিয়েট ইংলিশ গ্রামার বইটির ও সাহায্য নিতে পারেন (যেকোন একটি)। সাথে রাখবেন এসিউরেন্স বইটি (যদি সম্ভব হয়) । আর অনুশীলনের জন্য অবশ্যই “ইংলিশ ফর কম্পিটিটিভ এক্সাম ” বইটি প্রতিদিন পড়বেন। যারা এই বইটি একবার ভালভাবে শেষ করতে পারবে আমার বিশ্বাস ইংরেজি প্রিলির অংশে যেকোন নিয়োগ পরীক্ষায় তার দুর্দান্ত পারফরমেন্স থাকবে। আর অবশ্যই নিয়মিত “পড়সসড়হ সরংঃধশবং রহ ঊহমষরংয “নু ঞঔ ঋরঃরশরফবং বইটি পড়বেন নিয়মিত। খুব ছোট কিন্তু দুর্দান্ত বই এটি।

বাংলাদেশ বিষয়াবলী
প্রফেসরস /ওরাকল এর যেকোন এটি বই। আজকের বিশ্ব বইটি। ৯ম-১০ম শ্রেণীর ইতিহাস বই। সাথে প্রতিদিন জাতীয় সংবাদপত্রে চোখ রাখতে হবে।

আন্তর্জাতিক বিষয়াবলী
প্রফেসরস /ওরাকল এর যেকোন এটি বই। আজকের বিশ্ব বইটি। সাথে প্রতিদিন জাতীয় সংবাদপত্রে চোখ রাখতে হবে।

গণিত
শাহীন’স গণিত বইটি দেখতে পারেন অথবা প্রফেসরস বা ওরাকলের যেকোন একটা। সাথে অবশ্যই ৭ম থেকে ১০ম শ্রেণীর গণিত গুলো দেখতে হবে। বাজারে শর্টকাট টেকনিকের অনেক বই আছে। দয়া করে এগুলো আপাতত পড়বেন না। গণিত করবেন গণিতের মত। এ কাজটি আপনাকে লিখিত পরীক্ষায় ও ভাল কাজ দিবে। তবে পরীক্ষার ১মাস আগে শর্টকাট টেকনিকগুলো অনুশীলন করতে পারেন। কিন্তু এখন নয়।

বিজ্ঞান
৯ম-১০ম শ্রেণীর সাধারণ বিজ্ঞান বইটি। সাথে প্রফেসরস /ওরাকলের যে কোন একটি। পাশাপাশি যদি সম্ভব হয় (না হলেও সমস্যা নাই) ৯ম-১০ম শ্রেণীর জীববিজ্ঞান ও পদার্থবিজ্ঞান বইটি সিলেবাসের সাথে মিল রেখে পড়তে পারেন।

কম্পিউটার ও তথ্য প্রযুক্তি
উচ্চ মাধ্যমিক কম্পিউটার ও তথ্য প্রযুক্তি (মোজাম্মেল হকের) বইটি, সাথে ইজি কম্পিউটার বইটি। বিকল্প হিসেবে প্রফেসরস /ওরাকলের বইটি রাখতে পারেন। তবে যাদের কাছে উচ্চ মাধ্যমিক কম্পিউটার ও তথ্য প্রযুক্তি বইটি কঠিন মনে হয় তারা সেটি বাদ দিয়ে উপরের গুলো পড়লেও চলবে।

ভূগোল
৯ম-১০ম শ্রেণীর ভূগোল বইটি। সাথে প্রফেসরস /ওরাকলের যেকোন ১টি। তবে এখানের বেশিরভাগ পড়াই আপনার বাংলাদেশ ও আন্তর্জাতিক বিষয়াবলীতে পড়া হয়ে যাবে।

নৈতিকতা,মূল্যবোধ ও সুশাসন
উচ্চ মাধ্যমিক পৌরনীতি (২য় পত্র) বইয়ের সুশাসন অধ্যায়টি পড়তে পারেন। সাথে প্রফসরস/ওরাকলের যেকোন একটি। তবে এ বিষয়টি প্রায় সম্পুর্ণ কমনসেন্স থেকেই আসবে।

মানসিক দক্ষতা
প্রফেসরস এবং ওরাকল ২টাই কিনবেন। বিগত বছরের প্রিলি ও লিখিত পরীক্ষার মানসিক দক্ষতার প্রশ্নগুলো বুঝে বুঝে সমাধান করবেন।

এগুলোর সাথে অবশ্যই একটা ভাল মানের জব সলিউশন থাকা চাই। রুটিন করে এ বিষয়গুলো পড়বেন। সাথে অবশ্যই জব সলিউশন থেকে প্রতিদিন ৩/৪সেট প্রশ্ন শেষ করবেন। যদি নিয়মিত সময় দিয়ে পড়তে পারেন তবে নিশ্চিত করে বলছি আপনার বিসিএস বা অন্য যেকোন সরকারি চাকরি হবেই হবে, আজ নয়তো কাল। বিসিএস এর প্রস্তুতি নিলে আপনাকে আর অন্যকোন সরকারি চাকরীর প্রস্তুতি নিতে হবেনা। বিসিএস প্রস্তুতি হল সকল চাকরির সেরা প্রস্তুতি।

যেকোন কাজ কঠিন হতে পারে,কিন্তু অসাধ্য নয়। অতীতে অনেকে ক্যাডার হয়েছে,আপনিও হবেন। অনেকেই যোগ্যতা ভিত্তিক চাকরী পেয়েছে,আপনিও পাবেন। আপনি ভয়ে হতাশ হয়ে গেলে,কাছের বন্ধুরা হয়তো ২দিন সান্তনা দিতে আসবে,কিন্তু চাকরি দিতে কেউ পারবেনা। অতএব চাকরি যেহেতু করতেই হবে,সুতরাং পড়তেই হবে।

Leave A Reply