Deshprothikhon-adv

পুঁজিবাজারে ৫ কোম্পানির ‘নো ডিভিডেন্ড’ ঘোষণা

0
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0Share on LinkedIn0Share on Yummly0Share on StumbleUpon0Share on Reddit0Flattr the authorEmail this to someonePrint this page

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ৫ কোম্পানি শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ‘নো ডিভিডেন্ড’ ঘোষণা করেছে। কোম্পানিগুলো হলো- মেঘনা কনডেন্সড মিল্ক, মেঘনা পিইটি, শ্যামপুর সুগার মিলস, জিলবাংলা সুগার মিল ও দুলামিয়া কটন। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। ৩০ জুন ২০১৫ সমাপ্ত হিসাব বছরের আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে কোম্পানির পরিচালনা পর্ষদ শেয়ারহোল্ডারদের জন্য কোনো লভ্যাংশের সুপারিশ করেনি।

মেঘনা কনডেন্সড মিল্ক : কোম্পানিটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) আগামী ২৩ ডিসেম্বর কুমিল্লার সদর দক্ষিণে বাগমারায় মেঘনা ইন্ডাস্ট্রিয়াল কমপ্লেক্স-২ এর অবস্থিত মেঘনা কমিউনিটি সেন্টারে সকাল সাড়ে ১০টায় অনুষ্ঠিত হবে। এ জন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ৭ ডিসেম্বর।

২০১৫ সালের ৩০ জুনে সমাপ্ত হিসাব বছরের আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি লোকসান হয়েছে ২.০৯ টাকা। শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য ঋণাত্মক ২৭.৫৭ টাকা ও শেয়ারপ্রতি নগদ সম্পদ প্রবাহের পরিমাণ হচ্ছে ঋণাত্মক ২.৩৬ টাকা। গত ২০১১ সাল থেকে কোম্পানিটি বিনিয়োগকারীদের কোনো লভ্যাংশ দেয়নি। ২০১০ সালে ৫ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল কোম্পানিটি। ২০০১ সালে মেঘনা কনডেন্সড মিল্ক পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়।

মেঘনা পিইটি : কোম্পানিটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) আগামী ২৩ ডিসেম্বর কুমিল্লার সদর দক্ষিণে বাগমারায় মেঘনা ইন্ডাস্ট্রিয়াল কমপ্লেক্স-২ এর অবস্থিত মেঘনা কমিউনিটি সেন্টারে সকাল সাড়ে ১০টায় অনুষ্ঠিত হবে। এ জন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ৭ ডিসেম্বর।

২০১৫ সালের ৩০ জুনে সমাপ্ত হিসাব বছরের আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি লোকসান হয়েছে ০.৪১ টাকা। শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য ঋণাত্মক ২.৪০ টাকা ও শেয়ারপ্রতি নগদ সম্পদ প্রবাহের পরিমাণ হচ্ছে ঋণাত্মক ০.২৮ টাকা। তালিকাভুক্তির পর থেকে এ পর্যন্ত কোম্পানিটি বিনিয়োগকারীদের কোনো লভ্যাংশ দেয়নি। ২০০১ সালে মেঘনা পিইটি পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়।

শ্যামপুর সুগার মিলস : কোম্পানিটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) আগামী ১৯ ডিসেম্বর রংপুর শ্যামপুরে অবস্থিত সুগার মিলের প্রশিক্ষণ মিলনায়তনে সকাল ১০টায় অনুষ্ঠিত হবে। এ জন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ১৭ নভেম্বর।

২০১৫ সালের ৩০ জুনে সমাপ্ত হিসাব বছরের আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি লোকসান হয়েছে ৬৭.৫২ টাকা। শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য ঋণাত্মক ৫২৯.২০ টাকা ও শেয়ারপ্রতি নগদ সম্পদ প্রবাহের পরিমাণ হচ্ছে ঋণাত্মক ২৮.২১ টাকা। প্রাপ্ত তথ্যে দেখা যায়, গত ১৫ বছরেও কোম্পানিটি বিনিয়োগকারীদের কোনো লভ্যাংশ দেয়নি। ১৯৯৬ সালে শ্যামপুর সুগার মিলস পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়।

জিলবাংলা সুগার মিলস : কোম্পানিটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) আগামী ১২ ডিসেম্বর জামালপুরে অবস্থিত জামালপুর শিল্পকলা একাডেমি অডিটরিয়ামে বেলা ৩টায় অনুষ্ঠিত হবে। এ জন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ১৭ নভেম্বর।

২০১৫ সালের ৩০ জুনে সমাপ্ত হিসাব বছরের আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি লোকসান হয়েছে ৫৬.৮৯ টাকা। শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য ঋণাত্মক ৩৩৩.৮০ টাকা ও শেয়ারপ্রতি নগদ সম্পদ প্রবাহের পরিমাণ হচ্ছে ঋণাত্মক ২০.১৭ টাকা। প্রাপ্ত তথ্যে দেখা যায়, গত ১৫ বছরেও কোম্পানিটি বিনিয়োগকারীদের কোনো লভ্যাংশ দেয়নি। ১৯৮৮ সালে জিলবাংলা সুগার মিলস পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়।

দুলামিয়া কটন :

কোম্পানিটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) আগামী ২২ ডিসেম্বর রাজধানীর বীরউত্তম সি আর দত্ত রোডে অবস্থিত হোটেল সুন্দরবনে সকাল সাড়ে ১০টায় অনুষ্ঠিত হবে। এ জন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ১৭ নভেম্বর।

২০১৫ সালের ৩০ জুনে সমাপ্ত হিসাব বছরের আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি লোকসান হয়েছে ২.৫০ টাকা। শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য ঋণাত্মক ৩৬.৭৬ টাকা ও শেয়ারপ্রতি নগদ সম্পদ প্রবাহের পরিমাণ হচ্ছে ঋণাত্মক ১.৪২ টাকা। প্রাপ্ত তথ্যে দেখা যায়, সর্বশেষ ২০০৯ সালে কোম্পানিটি ২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল। এরপর শেয়ারহোল্ডারদের কোনো লভ্যাংশ দেয়নি এ কোম্পানি। ১৯৮৯ সালে দুলামিয়া কটন পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়।

Leave A Reply